চুলায় তৈরি পাউরুটি রেসিপি

Bread recipe

সকালের কিংবা বিকেলের নাস্তায় পাউরুটির কোন জুড়ি নেই। পাউরুটি শুধু চায়ের সাথে খাওয়া যায় এমন না, পাউরুটি দিয়ে বিভিন্ন ধরনের নাস্তা তৈরি করা যায়। এমন কি বাচ্চাদের টিফিনেও নাস্তা হিসিবে পাউরুটি ব্যবহার করা যায়। ঘরে বসে  খুব সহজে বেকারির মত কিভাবে পাউরুটি রেসিপি আজকে শিখবো। তাহলে চলুন কিভাবে তৈরি করা যায় জেনে নেই।

উপকরণ:

পাউরুটি রেসিপিতে উপকরণ লাগবে তা নিচে দেওয়া হল-
ময়দা -২ কাপ, ইস্ট পাউটার -২ টেবিল চামচ, চিনি -২ টেবিল চামচ, দুধ – ১/২ কাপ ( কুসুম গরম), লবণ- স্বাদমত, পানি – প্রয়োজন মত (কুসুম গরম), ডিম -১ টি ( হলুদ অংশ), তেল- ২ টেবিল চামচ।
 

প্রনালি :

প্রথমে ইস্ট ও চিনিটাকে একটি নিয়ে তার মধ্যে কুসুম গরম দুধ দিয়ে একটি চামচ দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে ১০ মিনিটের জন্য ঢেকে দিতে হবে। এখন একটি বড় বাটিতে ময়দা ও স্বাদমত লবণ হাত দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। এখন এর মধ্যে তেল দিয়ে হাত দিয়ে আবার মিশিয়ে নিতে হবে। এখন ১০ মিনিট আগে যে ইস্টটাকে ভিজিয়ে রেখেছি তা দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। মিশানো হলে এই ডোটাকে  ১০-১৫ মিনিট ভালো করে মথে নিতে হবে। এই ডোটাকে মথে একটি সফট ডো তৈরি করে নিতে হবে। এখন এই ডোটাকে ১ ঘন্টার জন্য ঢেকে রেখে দিতে হবে।
 

পাউরুটি রেসিপি

১ ঘন্টা পর ডো ফুলে ডাবল হয়ে যাবে।এখন এই ডোটাকে আবার ১০ মিনিট মথে নিতে হবে। এখন একটি লম্বা মোল্টে এই ডোটাকে রেখে দিতে হবে ১০ মিনিটের জন্য।১০ মিনিট পর একটি ডিমের হলুদ অংশ  ব্রাশ করে নিতে হবে।এখন বেক করে নিতে হবে।
 

বেকিং পদ্ধতি:

একটি বড় পাত্রের উপর বালু/ লবণ দিয়ে একটি স্ট্যান্ড দিয়ে চুলার উপর হাই হিটে প্রি- হিট করে নিতে হবে। এখন চুলায় পাউরুটির মোল্ড বসিয়ে দিয়ে চুলার আঁচ কমিয়ে ৩০-৩৫ অপেক্ষা করতে হবে।
 
 

৩০-৩৫ মিনিট পর একটি টুথপেক/কাঠি দিয়ে চেক দিতে হবে। যদি টুথপেক/কাঠি পরিস্কার আসে তাহলে পাউরুটি হয়ে গেছে। এখন একটি ভিজা কাপড় দিয়ে পুরো পাউরুটি ঢেকে রেখে দিতে হবে ঠান্ডা হওয়া পর্যন্ত। ঠান্ডা হলে ছুরি দিয়ে কেটে পিচ পিচ করে কেটে নিলে হয়ে যাবে সুস্বাদু পাউরুটি।